কৃষি ও প্রকৃতি

বিশ্বে বাংলাদেশের সবুজ বাঁধাকপির চাহিদা দিগুন

৭০ মিলিয়ন ডলারের বাঁধাকপি রপ্তানি করে বাংলাদেশ এবং গত বছর বিশ্বে বাঁধাকপির চাহিদা ছিল ৫.৮ বিলিয়ন ডলারের। যা বাংলাদেশের বাঁধাকপি খামারিদের মনে জাগাচ্ছে নতুন আশা।

কৃষি ডেস্ক: কৃষি গবেষকদের মতে বিশ্বে বাংলাদেশের সবুজ বাঁধাকপির চাহিদা দিগুন হয়েছে। সামনে বছরগুলো বাংলাদেশের এই বাঁধাকপির চাহিদা কয়েকগুণ বৃদ্ধি পাবে বলে তারা ধরনা করছেন। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা শুধুমাত্র জানুয়ারি মাসেই যশোর থেকে ২ হাজার টন বাঁধাকপি রপ্তানির টার্গেট বাংলাদেশের রয়েছে।

আমেরিকা, ইউরোপীয় ইউনিয়ন এবং কোরিয়ার রপ্তানিকারকরা বাঁধাকপি রপ্তানির জোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। নেদারল্যান্ডস’এর একটি প্রতিষ্ঠান সলিডারিডাড নেটওয়ার্ক এশিয়া সকল কারিগরী সহায়তা দিয়ে যাচ্ছে। চুক্তিভিত্তিক প্রক্রিয়ায় যদি মান বাড়ানো সম্ভব হয় তবে বাংলাদেশের খামারিদের থেকেই ১০ লাখ টন বাঁধাকপি পাঠানো সম্ভব হবে।

এগ্রোটেক বিডি’র মালিক ও রপ্তানিকারক জহিরুল ইসলাম খান জানান, তার কোম্পানি মালয়েশিয়া, তাইওয়ান, সিঙ্গাপুর ও ভিয়েতনামে ৫’শ টন বাঁধাকপি রপ্তানি করবে। জানা যায়,৭০ মিলিয়ন ডলারের বাঁধাকপি রপ্তানি করে বাংলাদেশ এবং গত বছর বিশ্বে বাঁধাকপির চাহিদা ছিল ৫.৮ বিলিয়ন ডলারের। যা বাংলাদেশের বাঁধাকপি খামারিদের মনে জাগাচ্ছে নতুন আশা।

Tags

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close